সর্বশেষ সংবাদ
Home / খেলাধুলা / ক্রোয়েশিয়াকে লজ্জা উপহার স্পেনের

ক্রোয়েশিয়াকে লজ্জা উপহার স্পেনের

রাশিয়া বিশ্বকাপটা মোটেও ভালো যায়নি স্পেনের। শেষ ষোলোতেই শেষ হয়ে যায় সাবেক চ্যাম্পিয়নদের বিশ্বকাপ। সেই হতাশা কাটিয়ে উঠছেন তারা। ফের এর প্রমাণ পাওয়া গেল। উয়েফা নেশন্স লিগের ম্যাচে ক্রোয়েশিয়াকে গোলবন্যায় ভাসিয়েছেন লুইস এনরিকের শিষ্যরা। বিশ্বকাপ রানার্স-আপদের জালে গুনে গুনে ৬ গোল দিয়েছেন তারা।

এ নিয়ে লজ্জার ইতিহাস গড়ল ক্রোয়েশিয়া। নিজেদের ইতিহাসে এটাই ক্রোয়াটদের সবচেয়ে বড় হার। এর আগে কখনো ৪ গোলের বেশি ব্যবধানে হারেননি তারা। এর আগে কখনো ৫বারের বেশি নিজেদের জাল থেকে বল কুড়িয়েও আনেননি।

মঙ্গলবার রাতে ‘এ’ লিগের গ্রুপ ৪-এর ম্যাচটিতে ক্রোয়েশিয়াকে স্পেন নাকানিচুবানি খাওয়ালেও আভাস ছিল অন্যরকম। শুরুটা হয় আক্রমণ পাল্টা আক্রমণে। কেউ কাউকে নাহি ছাড় দিতে চায়-এ নীতিতেই এগিয়ে চলে খেলা।

তবে মিনিট ২৫-এর পর আবহাওয়া বদলে যায়। একটু আগেই গোলের দেখা পেয়ে যায় স্পেন। দানি কারভাহালের ক্রসে দুর্দান্ত হেডে বল জালে জড়ান সাউল নিগেস। ব্যবধান দ্বিগুণ হতেও সময় লাগেনি। ৩৩ মিনিটে দারুণ এক গোলে ব্যবধান বাড়ান অ্যাসেনসিও। তার বুলেট গতির শটে চেয়ে চেয়ে দেখা ছাড়া উপায় ছিল না প্রতিপক্ষ গোলরক্ষকের।

২ মিনিট পর ফের অ্যাসেনসিও জাদু। তার তীর শট ক্রসবারের নিচে লেগে কালিনিচের পিঠ ছুঁয়ে জালে জড়ায়। আত্মঘাতী গোলে স্কোর লাইন হয় ৩-০। এ ব্যবধান নিয়েই বিরতিতে যায় স্পেন।

দ্বিতীয়ার্ধেও স্বরূপে ২০১০ বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। শুরুতেই গোল পেয়ে যায় তারা। এবার সাউল-অ্যাসেনসিও জোট। তো ঠেকায় কে? তাদের বাড়ানো পাস ধরে নিশানাভেদ করেন রদ্রিগো।

এদিন যেন গোলের নেশায় মত্ত হয়ে পড়েছিলেন স্প্যানিশরা। কোনো কিছুতেই খায়েস মিটছিল না। ৫৭ মিনিটে গোলক্ষুধা মেটান সার্জিও রামোস। অ্যাসেনসিওর কর্নার থেকে দুর্দান্ত হেডে বল ঠিকানায় পাঠান স্পেন অধিনায়ক।

সবাই পারলে ইস্কো আবার বাকি থাকবেন কেন? জাল খুঁজে নেন তিনিও। ৭০ মিনিটে ব্যবধান ৬-০ করেন ইসকো। তাতেও ছিল অ্যাসেনসিওর ছোঁয়া। বাকি সময়ে সাইড বেঞ্চ বাজিয়ে নেন এনরিকে। বেশ কয়েকজনকে অদলবদল করে মাঠে নামান। শেষ পর্যন্ত বিশাল জয় নিয়ে মাঠ ছাড়েন তার শিষ্যরা।

বলার অপেক্ষা রাখে না, এ ম্যাচে খুঁজেই পাওয়া যায়নি ক্রোয়েশিয়াকে। এটি ছিল মাঝমাঠের তুখোড় সৈনিক ইভান রাকিটিচের ১০০তম ম্যাচ। সেই ম্যাচেই কি না নিষ্প্রভ হয়ে থাকলেন রাশিয়া বিশ্বকাপে রূপকথার গল্প রচনা করা নায়করা। স্পেনের বিপক্ষে যে নিজেদের ছায়া হয়েই ছিলেন লুকা মদ্রিচরা!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

লিওঁয়ের জালে পিএসজির গোলোৎসব, এমবাপ্পের ১ হালি

আবারও স্বমহিমায় উজ্জ্বল কিলিয়ান এমবাপ্পে। পায়ে ফোটালেন ফুটবলের শৈল্পিক ফুল। দুর্দান্ত ফুটবল ...

Skip to toolbar