সর্বশেষ সংবাদ
Home / খেলাধুলা / মরিনহোর বাধায় রোনাল্ডোকে কেনেনি ম্যানইউ

মরিনহোর বাধায় রোনাল্ডোকে কেনেনি ম্যানইউ

২০০৯ সালে স্প্যানিশ ক্লাব রিয়াল মাদ্রিদে আসার আগে ক্যারিয়ারের স্বর্ণসময়ের সূচনাটা ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডেই করেছিলেন পর্তুগিজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। শোনা যাচ্ছিল, আবারও ম্যানইউতেই ফিরবেন ৩৩ বছর বয়সী রোনাল্ডো। কিন্তু সবাইকে অবাক করে ১০৫ মিলিয়ন ইউরোর বিনিময়ে ইতালিয়ান ক্লাব জুভেন্টাসে নাম লিখিয়েছেন। তাহলে কেন শোনা গেল ম্যানইউতে যাওয়ার গুঞ্জন, কেনইবা ম্যানইউতে না গিয়ে জুভেন্টাসে চলে গেলেন রোনাল্ডো?

ইংলিশ গণমাধ্যমের দাবি, ম্যানইউ বস হোসে মরিনহোর আপত্তির কারণেই রোনাল্ডোকে ইংল্যান্ডে আনা হয়নি। তা না হলে নিজের সাবেক ক্লাব ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে আবারও দেখা যেত রোনাল্ডোকে। মরিনহোই ম্যানইউ ম্যানেজম্যান্টকে নিষেধ করে দিয়েছিলেন যাতে রোনাল্ডোকে না কেনা হয়।

মরিনহো ম্যানইউ কর্তৃপক্ষকে বলেছিলেন, ৩৩ বছর বয়সী একজন খেলোয়াড়ের জন্য রিয়াল মাদ্রিদকে ৯০ মিলিয়ন পাউন্ড দেয়াটা অনর্থক। আর্থিক দিক বিবেচনা করে রোনাল্ডোকে কিনতে নিষেধ করা মরিনহো ম্যানইউকে বলেছিলেন টবি অ্যাইডারউল্ড, হ্যারি মাগুইরে বা ডিয়েগো গোডিনকে দলে নিতে। কিন্তু দলবদলের সময় পেরিয়ে গেলেও তিনজনের কাউকে নিতে পারেনি ম্যানইউ।

ফলে মরিনহোর ওপর ক্ষেপেছে ম্যানইউর সমর্থকরা। মৌসুমের শুরুতেই রব উঠেছে স্বঘোষিত ‘স্পেশাল ওয়ান’ এর বিদায়ের। উঠবেইনা কেন, ইপিএলের প্রথম তিন ম্যাচের দুটিতেই যে হেরে বসেছে মরিনহোর ইউনাইটেড।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

খেলার ফাঁকে প্রেমিকাকে ফুটবলারের অভিনব প্রস্তাব (ভিডিও)

ফুটবলার গোল করলেন। ছুটে গেলেন গ্যালারিতে। তবে দর্শকের সঙ্গে গোল উৎসবে মেতে ...

Skip to toolbar