এক কবিতায় ২১ শিল্পীর কণ্ঠ

মহামারি করোনা সংকট মানুষের বোধের শেকড়ে ভীষণভাবে নাড়া দিয়েছে। ক্ষণস্থায়ী এই পৃথিবীতে বেঁচে থাকার অর্থও যেন পাল্টে গিয়েছে। পাল্টে যাওয়া জীবনের উপলদ্ধির কথা কবিতায় জানালেন দর্শকপ্রিয় ২১ জন প্রবাসী শিল্পী।

‘এ যাত্রায় বেঁচে গেলে, ভীষণ করে বাঁচবো/ সবাইকে জড়িয়ে ধরে, অনেক করে কাঁদবো/ এ যাত্রায় রেহাই যদি পাই, অন্যের কথা ভাববো/ যার যেখানে অংশ আছে, হিসাবগুলো চুকিয়ে দেব’—এমন পঙক্তিমালায় সাজানো হয়েছে কবিতাটি। এটি রচনা করেছেন সহস্র সুমন।

শিল্পীদের এই দীর্ঘ তালিকায় রয়েছেন আশি ও নব্বই দশকের ছোট পর্দার জনপ্রিয় মুখগুলো। তাদের সবাই এখন যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, কানাডা, অস্ট্রেলিয়াসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে বসবাস করছেন। বিশ্বের নানা প্রান্তে থেকেও একটি সুতায় মালার মতো এক হয়েছেন তারা।

আবৃত্তিতে অংশ নেওয়া শিল্পীরা হলেন—তানিয়া আহমেদ, মোনালিসা, রুমানা, জামাল উদ্দিন হোসেন, মিলা হোসেন, শামীম শাহেদ, শিরিন বকুল, শ্রাবন্তী, কাজী উৎপল, তমালিকা কর্মকার, ডলি জহুর, শামসুল আলম বকুল, প্রিয়া ডায়েস, মহসিন রেজা, হিল্লোল, আফরোজা বানু, নওশীন নাহরিন মৌ, খাইরুল ইসলাম পাখি, রওশন আরা, টনি ডায়েস ও লুৎফুন নাহার লতা।

প্রত্যেক শিল্পী নিজ নিজ ঘরে থেকে কবিতা আবৃত্তির ফুটেজ পাঠিয়ে দেন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী টনি ডায়েসের কাছে। সেসব ফুটেজ নিয়ে তৈরি হয়েছে একটি ভিডিও। যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী নওশীন নাহরিন মৌয়ের পরিকল্পনায় এটি পরিচালনা করেছেন টনি ডায়েস।

গতকাল রাতে ফেসবুকে উন্মুক্ত করা হয়েছে ভিডিওটি। করোনা সংকটে যারা সামনে থেকে যুদ্ধ করছেন তাদেরকে এটি উৎসর্গ করা হয়েছে। সেই সঙ্গে সকল বাংলাদেশিদের জন্য এটি উপহার বলে জানিয়েছেন টনি ডায়েস।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

সম্পাদকঃ শারমিন আক্তার, প্রকাশকঃ মোঃ এনামুল হক, হুজাইফা এন্টারপ্রাইজ লিমিটেড কর্তৃক চৌধুরী মল ৪৩, শহীদ নজরুল ইসলাম সড়ক (হাটখোলা রোড), টিকাটুলি, ঢাকা-১২০৩ হতে প্রকাশিত। ফোন-ফ্যাক্স: ৭১২৫৩৮৬। । ই-মেইল: tatkhonik@gmail.com