বিশাল পদোন্নতি করোনায় উদ্বিগ্ন জনগণের প্রতি মস্ত বড় তামাশা’

করোনাভাইরাস ঝড়ের বেগে বাংলাদেশের মানুষকে আক্রান্ত করছে। প্রতিদিন অসংখ্য মানুষ মারা যাচ্ছে। যে মুহূর্তে সবচেয়ে বড় প্রয়োজন অক্সিজেন সিলিন্ডার, বেড, আইসিইউ বেড, মাস্ক, গ্লাভস, ফেসশিল্ড ও স্যানিটাইজারের, সেই মুহূর্তে পদ না থাকার পরেও বিশাল পদোন্নতি করোনায় উদ্বিগ্ন জনগণের প্রতি মস্ত বড় তামাশা।’

মঙ্গলবার (৯ জুন) এক ভিডিও কনফারেন্সে এসব কথা বলেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে করোনাকালেও চলছে মহাসমারোহে একদলীয় শাসনকে চূড়ান্ত রূপ দেওয়ার আয়োজন। সরকার মনে হয় মহাঅস্থিরতায় ভুগছে। তাই নিজেদের পছন্দের লোকদেরকে পদোন্নতি দেওয়ার হিড়িক পড়েছে। কয়েক দিন আগে ১২৩ জন উপ-সচিবকে যুগ্ম সচিব পদে পদোন্নতি দেওয়া হয়েছে। গত শুক্রবার সরকারি ছুটির দিনে এ আদেশ দেওয়াটাও নানা প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে। পদ নেই, তবুও পদোন্নতি চলছে আলোকের গতিতে। পর্যাপ্ত পদ না থাকায় বেশিরভাগ কর্মকর্তাকে আগের পদে থাকতে হবে বলে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে।’

রুহুল কবির রিজভী বলেন, ‘সরকারের এই সুপারনিউমারি পদোন্নতি সম্পূর্ণভাবে রাজনৈতিক স্বার্থে। পদোন্নতিপ্রাপ্তদের মধ্যে আছেন চারজন মন্ত্রীর একান্ত সচিব ও ছয়জন জেলা প্রশাসকসহ আওয়ামী ঘনিষ্ঠরা। এই ঘোর দুর্দিনে পদ না থাকা সত্বেও এতগুলো পদোন্নতি দেওয়ায় এটা সুপ্রমাণিত যে, সরকার জনগণের বাঁচা-মরাকে তোয়াক্কা করে না, শুধু ক্ষমতাকে অনিশ্চয়তার হাত থেকে বাঁচানোর জন্য যত ধরনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা দরকার তারা সেটিই করছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

সম্পাদকঃ শারমিন আক্তার, প্রকাশকঃ মোঃ এনামুল হক, হুজাইফা এন্টারপ্রাইজ লিমিটেড কর্তৃক চৌধুরী মল ৪৩, শহীদ নজরুল ইসলাম সড়ক (হাটখোলা রোড), টিকাটুলি, ঢাকা-১২০৩ হতে প্রকাশিত। ফোন-ফ্যাক্স: ৭১২৫৩৮৬। । ই-মেইল: tatkhonik@gmail.com